Ticker

6/recent/ticker-posts

Ads

Digital Bangla 360 ইউটিউব চ্যানেলটি মাসে কত টাকা আয় করে ? সফলতার গল্প

একটি ইউটিউব চ্যানেল খোলা খুবই সহজ মাত্র একটি জিমেইল আইডি থাকলেই অটোমেটিক তৈরি হয়ে যায় নামের ধারা একটু ভালো করে বলতে গেলে আপনি জিমেইল খোলার সময় যেই নাম ব্যবহার করবেন ফার্স্ট নেম ও লাস্ট নেম সেই নাম অনুযায়ী অটোমেটিক একটি ইউটিউব চ্যানেল তৈরি হয়ে যায় সকলেরই । যদিও ব্র্যান্ড ইউটিউব চ্যানেল খুলতে হলে একটু পরিশ্রম করতে হয় । এখন কথা হচ্ছে ইউটিউব চ্যানেল খুললেই তো হবে না ইউটিউব চ্যানেল কিভাবে বড় করতে হয় কিংবা কিভাবে ইউটিউবে পরিশ্রম করে সফলতা পেতে হয় বা সফলতা অর্জন করে নিতে হয় । এই টেকনিক আপনাদের মাঝে আজকে শেয়ার করার চেষ্টা করবো ইনশাআল্লাহ । সবেমাত্র সফলতা পাওয়া এমনই বাংলাদেশ থেকে পরিচালিত একটি ইউটিউব চ্যানেলের গল্প আজকে আপনাদের মাঝে তুলে ধরলাম । ডিজিটাল বাংলা ৩৬০ ইউটিউব চ্যানেল তৃণমূল থেকে উঠে আসার গল্পটি আপনাদের মাঝে আজকে তুলে ধরা হল যাতে করে আপনারা কিছুটা হলও উৎসাহিত হন । যাতে করে ভবিষ্যতে বা বর্তমানে আপনি যদি ইউটিউব থেকে ইনকাম করার কথা ভেবে থাকেন তাহলে আজকের এই আর্টিকেলটি অনেক কাজে দিবে ।

Digital Bangla 360 ইউটিউব চ্যানেলটি মাসে কত টাকা আয় করে ? সফলতার গল্প



চ্যানেলটি শুরু করার বিস্তারিত সময় সমূহ


ডিজিটাল বাংলা ৩৬০ ইউটিউব চ্যানেলটি শুরু হয়েছিল 18 সেপ্টেম্বর 2018 সালে যেটা আপনারা ইউটিউবে গিয়ে যদি সার্চ করেন ডিজিটাল বাংলা ৩৬০ তাহলে প্রথমে চ্যানেলটি পেয়ে যাবেন চ্যানেলের এবাউট অপশনে গিয়ে আপনারা বিষয়টি যাচাই করে নিতে পারেন যেটা স্ক্রিনশট আকারে নিচের ছবিতে দেখতে পারছেন ।



চ্যানেলের নাম কি কখনো পরিবর্তন করা হয়েছিল ?


একটু লক্ষ্য করলে দেখতে পাবেন দুনিয়াতে যত বড় বড় ব্র্যান্ড বা কোম্পানি তৈরি হয়েছে সবগুলোই প্রায় একবার দুইবার তিনবার কিংবা তারও বেশি বার নাম পরিবর্তন করেছে । উদাহরণস্বরূপ বলা যায় ফেসবুকের নাম কিন্তু প্রথমদিকে ফেসবুক ছিলনা । কয়েক বার নাম পরিবর্তন করার পরে সর্বশেষ যখন ফেসবুক নাম রাখা হয় তখনই কিন্তু এই সোশ্যাল মিডিয়া টি ভাইরাল হয়ে যায় সবার মাঝে । ঠিক ওরকমই ডিজিটাল বাংলা ৩৬০ চ্যানেলের পূর্বের নাম ছিল (বাংলা ওয়ান) পরবর্তীতে নামটি বদলে রাখা হয় ডিজিটাল বাংলা 360

চ্যানেলটি কিভাবে 4000 ঘন্টা 1000 সাবস্ক্রাইবার অর্জন করল ?


সত্যি কথা বলতে কি 4 হাজার ঘন্টা ওয়াচ টাইম ও 1000 সাবস্ক্রাইবার প্রথমদিকে অর্জন করাটা সবার জন্যই কষ্টকর হয়ে দাঁড়ায় ডিজিটাল বাংলা ৩৬০ চ্যানেলের বেলায়ও অনেক কষ্ট হয়েছে । চ্যানেলের শুরুর দিকে ভিডিও আপলোড করলে একটা বা দুইটার বেশি দিনে ভিউ হতোনা, সাবস্ক্রাইবার হয়তোবা সাপ্তাহে চারটা পাঁচটা দশটা করে পাওয়া যেত । একটা সময় তো হতাশ হয়ে ইউটিউব ছেড়ে দেওয়ার কথাই ভেবেছিলেন চ্যানেলটির কর্ণধার হোসাইন মোহাম্মদ ইউসুফ । দিশা না পেয়ে অনেক ধৈর্য্য ধারণ করে একের পর এক ভিডিও আপলোড করতে থাকলেন এই চ্যানেলে । এইভাবে করে কেটে গেল প্রায় ছয় মাস থেকে 1 বছরের মতো সময় হঠাৎ করে একটি ভিডিও ভাইরাল হয়ে গেল খুলে গেল কপালের দরজা তারপর আর ডিজিটাল বাংলা ৩৬০ চ্যানেলকে পিছনে ফিরে তাকাতে হয়নি একের পর এক ভিডিও দর্শক সাদরে গ্রহণ করে নিয়েছেন । এরপর আস্তে আস্তে করে চ্যানেলের ভিউ যেমন বাড়তে থাকে সাবস্ক্রাইবারও আস্তে আস্তে করে বাড়তে থাকে । এখানে একটি গোপন টিপস এন্ড ট্রিকস আপনাদের দেওয়া প্রয়োজন সেটি হলো ইউটিউবে সফল হতে গেলে অবশ্যই ধারাবাহিক ভিডিও আপলোড দেওয়ার কোনো বিকল্প নেই । যত বেশি ধারাবাহিক ভিডিও আপলোড করবেন আপনার চ্যানেল ততো বেশি সফলতা পাওয়ার সম্ভাবনা তৈরী হয়ে যাবে এটি ইউটিউব চ্যানেলের সিস্টেম বা ইউটিউব অ্যালগরিদম এভাবে কাজ করে থাকে । আপনি যত বেশি ইউটিউব চ্যানেলে ধারাবাহিকভাবে ভিডিও দিয়ে যাবেন আপনার সফলতা তত বেড়ে যাবে । এই বিষয়টি খুবই গুরুত্ব সহকারে মনে রাখা ভাল ইউটিউবে কখনোই সবগুলো ভিডিও ভাইরাল হয় না কিংবা হবেও না, ধারাবাহিকভাবে ভিডিও আপলোড করতে করতে একটা সময় একটা দুইটা ভিডিও যখন ভাইরাল হয়ে যাবে তখনই কিন্তু আপনার কপাল খুলে যাবে । যদি আপনি বর্তমানে ইউটিউব নিয়ে থাকেন কিংবা ভবিষ্যতে ইউটিউবে আসার কথা ভেবে থাকেন তাহলে এই বিষয়গুলো ফলো করলে অনেক কাজে দেবে । ইউটিউব তাদেরকেই বেশি প্রাধান্য দেয় যারা একটিভ থাকেন ইউটিউবে অর্থাৎ ধারাবাহিকভাবে ইউটিউবে ভিডিও আপলোড করে যান যারা তাদেরকে । বর্তমানে এই চ্যানেলের সাবস্ক্রাইবার সংখ্যা 33 হাজারেরও বেশি নিচে স্ক্রিনশট এ যেটা দেখতে পারছেন ।




গুগল এডসেন্স পেতে কি কোনো সমস্যা হয়েছিল ?


এই চ্যানেলের প্রয়োজনে গুগল অ্যাডসেন্স পাওয়ার জন্য কোনো রকম কোনো সমস্যা পোহাতে হয়নি । কারণ হচ্ছে ইউটিউব এর যাবতীয় গাইডলাইন মেনে চ্যানেলটি পরিচালিত হয়ে আসছিল শুরু থেকেই । এবং সম্পূর্ণ নিজস্ব কনটেন্ট আপলোড করা হয়েছিল বা এখনো হয়ে থাকে এই কারণে গুগল এ্যাডসেন্স অ্যাপ্রুভ পেতে কোনো রকম কোনো সমস্যা হয়নি । এ্যাডসেন্স এপ্লাই করার মাত্র তিন দিনের মাথায় এপ্রুভ হয যায় গুগল এডসেন্স । তবে এই চ্যানেলের প্রয়োজনে যখন গুগল এডসেন্স এর জন্য আবেদন করা হয় তখন সরাসরি বাংলাদেশ থেকে মনেটিজশন পাওয়া যেত না । এইজন্য ইউনাইটেড স্টেটস অর্থাৎ ইউএসএ সিলেট করে মনিটাইজেশন চালু করা হয়েছিল যদিও 2021 সাল থেকে সরাসরি বাংলাদেশ লোকেশন সিলেক্ট করে মনিটাইজেশন চালু করা বা এপ্লাই করা যাচ্ছে ।

 ইউটিউব গাইডলাইন মানাটা কি খুব বেশি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় ?


ইউটিউব গাইডলাইন মানাটা এতই বেশি প্রয়োজন যে আপনি যদি কোন গাইডলাইন ভঙ্গ করেন গুগল এডসেন্স তো পাবেনই না, যে কোন সময় আপনার ইউটিউব চ্যানেল টি ডিলেট করে দিতে পারে ইউটিউব কর্তৃপক্ষ ও গাইডলাইন স্ট্রাইক চলে আসতে পারে আপনার চ্যানেলে । তাই বলব যারা নতুন ইউটিউব চ্যানেল খুলে অনলাইন থেকে রিয়েল ভাবে ইনকাম করতে চান সারাজীবন তারা অবশ্যই ইউটিউব শুরু করার আগে ইউটিউব এর গাইডলাইন গুলো ভালভাবে জেনে নিবেন এবং মেনে কাজ করবেন সফলতা আল্লায় দিলে আপনার আসবেই ইনশাআল্লাহ ।

কি বিষয়ে এই চ্যানেলে ভিডিও আপলোড করা হয়ে ?


এটি একটি গুরুত্বপূর্ণ বিষয় অনেকেই চ্যানেল খোলেন কিন্তু কী বিষয়ে ভিডিও আপলোড করবেন এটি বুঝতে পারেন না এজন্য অনেকেই অনেক আশা প্রত্যাশা নিয়ে শুরু করলেও তাদের শেষটা ভালো হয় না । অর্থাৎ একটি পর্যায় হতাশ হয়ে ইউটিউব ছেড়ে চলে যান অনেকে । যারা ইউটিউব সম্পর্কে বিস্তারিত জেনে শুরু করেন তারাই বেশিরভাগ ইউটিউবে সফল হয়ে থাকেন কারণ তারা টপিক নির্বাচন করেই ইউটিউবিং শুরু করে থাকেন । ডিজিটাল বাংলা ৩৬০ চ্যানেলটিতে মূলত মেক মানি অনলাইন সম্পর্কিত ভিডিওগুলি বেশি আপলোড করা হয়ে থাকে । সবাই যাতে করে অনলাইন থেকে রিয়েল ভাবে ঘরে বসে মোবাইল কম্পিউটার ল্যাপটপ দিয়ে ইনকাম করতে পারে ইন্টারনেট ব্যবহার করে এই জন্যই সর্বদাই ইনকাম রিলেটিভ ভিডিও গুলো বেশি বেশি আপলোড করে থাকে এই চ্যানেলটি । তবে মনে রাখবেন আপনার যে বিষয়ে মনের ভালোবাসা বা মনের চাহিদা রয়েছে কেবল মাত্র আপনি সেই বিষয়ে টিটোরিয়াল বানালে সফলতা পাওয়ার সম্ভাবনাই বেশি । 

ডিজিটাল বাংলা 360 চ্যানেলের বর্তমান ইনকাম মাসে কত হয়ে থাকে ?


ইউটিউব চ্যানেল থেকে মূলত ইনকাম টা হয়ে থাকে ভিউর উপরে নির্ভর করে অর্থাৎ যত বেশি ভিডিওর ভিউ হবে ততো বেশি ইনকাম হবে এটিই হলো ইউটিউব থেকে ইনকাম করার সিস্টেম । ডিজিটাল বাংলা 360 চ্যানেলটি বর্তমানে প্রতি মাসে 100 ডলার বা তার কিছু বেশি ইনকাম করে থাকে ?


নতুন ইউটিউবারদের জন্য কিছু গোপন টিপস এন্ড ট্রিকস 


একটি গাছ লাগালে যেমন প্রথম দিন থেকেই ফল কখনোই আশা করা উচিত না কিংবা দেয় না । ঠিক ওরকমই একটি ইউটিউব চ্যানেল খুলেই প্রথম দিকেই ইনকাম করার চিন্তা করাটাও উচিত না । তাই বলব ইউটিউব থেকে ইনকাম করতে হলে ধৈর্য্য সহকারে পরিশ্রম করে যান একটা না একটা সময় সফলতা আসবেই । ইউটিউব থেকে গুগল এডসেন্স ছাড়াও আরো অন্য অন্য ভাবে ইনকাম করা যায় অন্য কোন আর্টিকেলে সেগুলো বলার চেষ্টা করবো তাই সর্বদা সবসময় আমাদের সাথেই থাকুন ।




Post a Comment

1 Comments